রক্ষণশীল সৌদি আরবে বোরকাবিহীন প্রকাশ্যে নারীর ঘুরাঘুরি, তোলপাড় বিশ্ব

Without Borka a lady at Market In Saudi

বদলের হাওয়া বইতে শুরু করেছে রক্ষণশীল সৌদি আরবে। পরনে বোরকা নেই। মাথা ঢেকেও রাখেন নি। বরং আধুনিক পোশাকে প্রকাশ্যে সৌদি আরবের শপিং মলে ঘুরছেন এক আরব নারী। নাম মাশাল আল জালুদ। তাঁর ছবিতে দুনিয়া আলোড়িত। আল জাজিরা, গালফ নিউজ সহ, আরব দুনিয়ার সংবাদ মাধ্যম তার এই ছবি ঢালাওভাবে প্রকাশ করেছে।

দেশটির রাজধানী রিয়াদের একটি শপিং মলে বোরখাবিহীন ঘুরে বেড়িয়েছেন জালুদ। তার এমন দুঃসাহসে সবাই অবাক হয়েছেন স্থানীয়রা। সৌদি নারীর এই ঘটনা বিশ্বজুড়ে আলোড়ন তৈরি করেছে। তবে জালুদ নির্বিকার। ৩৩ বছর বয়সী জালুদকে নিয়ে আলোচনা চলছে গোটা বিশ্বের মিডিয়ায়।

এর আগেও একাধিক সৌদি নারী কখনও বোরখা পরেই গাড়ি চালিয়েছেন। কেউবা প্রকাশ্যেই ধর্মীয় পুলিশের সঙ্গে তর্কে জড়িয়েছেন। সৌদি আরবের নারীরা শক্ত ধর্মীয় বাঁধন ছেড়ে মুক্ত মনে ঘুরে বেড়াতে মরিয়া হয়ে উঠেছেন।

দেশটির বর্তমান যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমান দেশ শাসনের বড় অংশটি সামলাচ্ছেন। পিতা বাদশাহ সালমান বিন আজিজের নির্দেশে যুবরাজ কড়া আইনে শিথিলতা আনছেন।  দেশের নারীদের জন্য ইতিমধ্যে একাধিক আইন শিথিলও করা হয়েছে। নির্বাচনে প্রত্যক্ষভাবে নারীদের অংশ নেওয়ার বিধান চালু হয়েছে।

গত বছর সৌদি নারীদের মাথা ঢেকে রাখার কাপড় ‘আবায়া’ পরার আইনে শিথিল হচ্ছে বলেই ইঙ্গিত দিয়েছিলেন যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমান। যদিও তা আইনে পরিণত হয়নি। তাঁর ঘোষণার পর থেকেই ধীরে ধীরে সৌদি আরবে প্রকাশ্যে আসতে শুরু করেন নারীরা। জালুদ তারই খোলামেলা প্রতীক হয়েই থাকবেন।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, জালুদ মানবসম্পদ বিশেষজ্ঞ। তিনি নিঃসংকোচেই সৌদি আরবের রাস্তায় বোরখা ছাড়াই ঘুরে বেড়িয়েছেন। এদিকে জালুদের দেখাদেখি আরও এক আরব নারীর অবস্থানও ঝড় তুলেছে। জিনস ও গেঞ্জি পরে সৌদির রাস্তায় দেখা যায় ২৫ বছরের তরুণীকে। তাঁর নাম মানাহেল আল ওতাইবি।

আরো দেখুন

Leave a Comment